Azizul Bashar
প্রধান খবর

শুক্রবার | ১৭ আগস্ট, ২০১৮ | ২ ভাদ্র, ১৪২৫ | ৫ জিলহজ্জ, ১৪৩৯

প্রচ্ছদ » প্রধান খবর » এক তরফা নির্বাচন করার পায়তাড়া করছে সরকার: মির্জা ফখরুল ইসলাম

এক তরফা নির্বাচন করার পায়তাড়া করছে সরকার: মির্জা ফখরুল ইসলাম

এক তরফা নির্বাচন করার পায়তাড়া করছে সরকার: মির্জা ফখরুল ইসলাম

১৮ দলীয় জোটের তিন দিনের হরতালের আজ শেষ দিনে বি এন পির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে দলের ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরূল ইসলাম আলমগীর সরকারে বিরুদ্ধে এক তরফা নির্বাচন করার পায়তাড়া করছেন  বলে দাবি তোলেন।

তিনি বলেন, আমরা সব দলের অংশগ্রহনের মাধ্যমে একটা সুষ্ঠ নির্বাচনের দাবি আগে থেকেই করে এসেছি। কিন্তু সরকার কখনই আমাদের সেই দাবি মেনে না নিয়ে বরং আমাদের নেতা কর্মীদের বিভিন্ন ভাবে হয়রানি করে এসেছে। মিথ্যা মামলা দিয়ে জেলে পাঠিয়েছে।

মির্জা ফখরুল এক প্রশ্নের জবাবে বলেন,সরকার সংলাপের কথা জানালেও  তাতে “আন্তরিকতা” নেই বলে দাবি করেছেন তিনি।প্রধানমন্ত্রী টেলিফোন করার পর এখন পরবর্তী সংলাপের উদ্যোগ বিরোধীদলীয় নেতার প্রতি সরকারি দলের নেতাদের আহ্বানের প্রতিক্রিয়ায় একথা বলেন বি এন পির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব।

মির্জা ফখরুল বলেন,আওয়ামীলীগ নিল নকশার নির্বাচন করার জন্য যে মহা পরিকল্পনা হাতে নিয়েছে তা কখন ও এ দেশের জনগন হতে দেবেনা। সারা বাংলাদেশের মানুষ হরতালে সমর্থন দিয়ে রাজ পথে নেমে এসেছে।

তিনি বলেন, মানুষ খুন করে, পুলিশ,ছাত্রলীগের গুন্ডা,র‌্যাব, বিডিয়ার দিয়ে ক্ষমতায় থাকা যায়না্ ।ফখরুল বলেন আমরা সঙ্কট নিরসনে সমাঝোতা চাই। তবে সকল দলের অংশগ্রহনের জন্য নির্দলীয় সরকারের দাবি থেকে আমরা সরে আসবো না।সকল দলের অংশগ্রহনে তাদের নির্বাচন দিতে হবে এর কোন বিকল্প নেই।আমরা অনেক ছাড়  দিয়েছি এখন থেকে আমাদের নেতা কর্মীরা আর  বসে থাকবেনা।তিনি অভিযোগ করে বলেন , “শাসক দল পরিকল্পিতভাবে ক্ষমতায় টিকে থাকবার জন্য দেশকে অনিবার্য সংঘাতের দিকে ঠেলে দিচ্ছে।সর্বজনস্বীকৃত নির্দলীয় সরকার ব্যবস্থা বাতিল করার রহস্য আজ দেশের জনগনের কাছে পরিস্কার হয়ে গেছে।তারা আজীবন ক্ষমতায় থাকতেই এই কাজটি করেছে”।

জনবিচ্ছিন্ন হয়ে ক্ষমতা হারানোর ভয়ে তারা আজ নির্বাচন দিতে ভয় পাচ্ছে ।তাই তারা নির্বাচনের পথ থেকে ফিরে এসে বাকশাল কায়েম করতে চায়।

মির্জা ফখ রুল ইসলাম আলমগীর বলেন,তিন দিনের হরতালে আওয়ামীলীগ সারা দেশে তার গুন্ডা বাহিনী দিয়ে আমাদের নেতাকর্মীদের উপর যে ভাবে নিপীড়ণ করেছে তার প্রতিবাদে আগামী ৩১ তারিখ সারা দেশের জেলা,মহানগড়,উপজেলায় বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হবে  ।আগামী পহেলা নভেম্বর শুক্রবার বাদ জুম্মা সাড়াদেশে নিহতদের স্মরনে  বি এন পির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে ৪টা ৩০ মিনিটে গায়েবানা জানাযা অনুষ্ঠিত হবে।

 

বিসিসি নিউজ টুয়েন্টিফোর ডটকম এ প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিও, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।


মন্তব্য করুন